শনিবার, সেপ্টেম্বর ১৮, ২০২১

এক বছরেই আফগানিস্তান থেকে যুক্তরাষ্ট্রে আক্রমণ করতে পারবে আল-কায়েদা: ব্লুমবার্গ

আরও পড়ুন

দুই সিনিয়র মার্কিন গোয়েন্দা কর্মকর্তার বরাত দিয়ে প্রভাবশালী পত্রিকা ব্লুমবার্গের এক প্রতিবেদনে দাবি করা হয়েছে, আল কায়েদা আফগানিস্তান থেকে যুক্তরাষ্ট্রের ওপর হামলার পরিকল্পনা করতে সক্ষম হতে মাত্র এক বা দুই বছর সময় নেবে।

এতে আরও দাবি করা হয়েছে, তালেবান দেশটি দখল করার পর ইতোমধ্যেই গ্রুপটি আফগানিস্তানে কার্যক্রম শুরু করেছে এবং যদি এটি কোন ইঙ্গিত হয়, তাহলে সন্ত্রাসী গোষ্ঠীটি এক বা দুই বছরের মধ্যে তাদের পায়ে দাঁড়াবে।

এই খবর এমন সময়ে আসলো যখন আল কায়েদা নেতা আয়মান আল-জাওয়াহিরির মারা যাওয়ার গুজব উঠেছিল এবং, ৯/১১ হামলার ২০তম বার্ষিকীতে আল কায়েদা কর্তৃক প্রকাশিত একটি ভিডিওতে আবার তাকে দেখা গেছে।

তালেবান আফগানিস্তানের দখল, দেশ থেকে মার্কিন সেনা প্রত্যাহারের পর পশ্চিমাদের চোখে এই অঞ্চলে সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডের অনুঘটক হিসেবে দেখা হচ্ছে আফগানিস্তানকে। তালেবান সরকারের অন্তর্বর্তীকালীন মন্ত্রিসভা অবশ্য পুনর্ব্যক্ত করেছে যে, তারা তাদের জমি কোনোভাবেই ব্যবহার করতে দেবে না সন্ত্রাসী কার্যকলাপে। যদিও তালেবানের মন্ত্রিপরিষদ নিজেই আন্তর্জাতিক নিষেধাজ্ঞা সহ বিভিন্ন সন্ত্রাসী তালিকায় আছে।

মার্কিন ডিফেন্স ইন্টেলিজেন্স এজেন্সির পরিচালক লেফটেন্যান্ট জেনারেল স্কট বেরিয়ার বলেন, বর্তমান মূল্যায়নে বলা যায়, আল-কায়েদা হুমকি দেওয়ার মতো কিছু ক্ষমতা তৈরি করতে পারে।

সেনা প্রত্যাহার সম্পন্ন করার সময়, পেন্টাগন বলেছিল, দেশকে রক্ষার জন্য ‘তারা যেকোনো সময় ফিরে আসতে পারে’। প্রকৃতপক্ষে, ২৫ আগস্ট কাবুল বিমানবন্দরে বিস্ফোরণের পর যুক্তরাষ্ট্র আফগানিস্তানে দুটি হামলা চালায়।

বেরিয়ার বলেন, ‘আমরা সবধরনের উৎস এবং প্রবেশাধিকার দিয়ে আফগানিস্তানে ফিরে আসার উপায় নিয়ে ভাবছি।’

সিআইএর উপপরিচালক ডেভিড কোহেন এক থেকে দুই বছরের সময়সীমার সঙ্গে একমত পোষণ করে ব্লুমবার্গকে বলেন, আল কায়েদা ইতিমধ্যেই তার কার্যক্রম শুরু করেছে।

যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক সাইট ইন্টেলিজেন্স গ্রুপ জানিয়েছে, সর্বশেষ ঘণ্টাব্যাপী ভিডিওতে আল-জাওয়াহিরিকে আফগানিস্তানের পরিস্থিতি, মার্কিন সেনা প্রত্যাহারসহ বেশ কয়েকটি বিষয়ে কথা বলতে দেখা গেছে।

নিউজ হান্ট/আরকে

সর্বশেষ