‘চাকরিতে বয়স না বাড়ালে আমাদের লাশ যাবে’

151
পুরনো ছবি

সরকারী চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা ৩২ করা না হলে তাদের বাড়িতে যেন লাশ যায় বলে সংবাদ সম্মেলনে জানিয়েছেন চাকরি প্রত্যাশীরা।

আজ (সোমবার) বেলা ১১ টায় ঢাকা রিপোটার্স ইউনিটে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে চাকরিতে বয়সীমা বাড়ানোর দাবি জানান তারা। তাদের দাবি আদায়ের জন্য আগামী ১১ জুন শাহবাগে জনসমাবেশের ডাক দেন। তাদের দাবি মেনে নেওয়া না হলে প্রয়োজনে তারা আরে কঠিন আন্দোলনের হুঁশিয়ারি দেন।

এ সময় বক্তারা বলেন, করোনাকালীন আমাদের চাকরিতে প্রবেশের যে দুই বছর আমরা হারিয়েছি। তা যেন বিবেচনা করে আমাদের চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা ৩২ করা হয়। কারণ, আমাদের অনেকের বয়স তখন ২৮ (আটাশ) ছুঁই ছুঁই ছিলো। কিন্তু হঠাৎ করোনার থাবায় দেশের সব থমকে যাওয়ায় চাকরিতে বয়সের যে নির্ধারিত বয়স ছিলো তা শেষ হয়ে যায়। এমন পরিস্থিতিতে আমরা আমাদের চাকরির যে নির্ধারিত বয়স ২৮ (আটাশ) বছর রয়েছে তা বর্ধিত করে প্রজ্ঞাপন জারি করে ৩২ (বত্রিশ) বছর করার জোর দাবি জানাচ্ছি।

এছাড়াও, বক্তারা আরো জানান, আমাদের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী করোনাকালীন অনেক সরকারী বেসরকারী প্রতিষ্ঠান এবং অন্যান্যদের প্রনোদনা দিয়েছেন। আমরা চাই আমাদের চাকরি প্রত্যশী যারা আছি তাদের জন্য যেন প্রনোদনা হিসেবে আমাদের চাকরিতে প্রবেশের বয়স বাড়িয়ে ৩২ করা হয়।

তারা আরও বলেন, আমরা যারা করোনার থাবায় বয়স হারিয়েছি তারা সবাই চাই সরকার উদ্যোগ নিয়ে যেন আমাদের চাকরির বয়স বাড়িয়ে আমাদের বেকারত্ব দূরীকরণে সাহায্য করে। তাছাড়াও, সরকারের নির্বাচনী ইশতেহারের মধ্যে অন্যতম ইশতেহার হলো বেকারত্ব দূরীকরণ। যদি বেকারত্ব দূর করতে হয় তবে আমাদের জন্য যেন চাকরিতে প্রবেশের বয়স বাড়িয়ে দেওয়া হয়। না হয় আমাদের চাকরি প্রত্যাশীরা যেভাবে হতাশায় ভূগছে তাতে অনেক শিক্ষার্থী মাদকাসক্ত সহ নানা রকম অপকর্মে জড়িয়ে পড়ছে।

তারা আরো জানায়, অনেক শিক্ষার্থী পড়াশুনা শেষ করে চাকরি না পাওয়ার কারণে অনেকে আত্মহত্যার মতো ভয়ংকর একটি পথ বেছে নেয়। কারণ আমাদের উপর আমাদের পরিবার চাতক পাখির মতো তাকিয়ে থাকে। কখন একটি চাকরি পেয়ে পরিবারের হাল ধরবো। কিন্তু যখন দেখি, আমরা চাকরির জন্য চেষ্টা করতে করতে বয়স শেষ হয়ে যায়। তখন হতাশায় আত্মহত্যার মতো পথ বেছে নেয়।

সংবাদ সম্মেলনের শেষে সারাদেশের শিক্ষার্থীদের আগামী ১১ জুন শাহবাগে জনসমাবেশে যোগ দেওয়ার ঘোষনা দেওয়া হয়।

নিউজ হান্ট/আরকে

পূর্ববর্তী নিবন্ধচীনা টিকার দাম জানিয়ে অতিরিক্ত সচিব ওএসডি
পরবর্তী নিবন্ধবঙ্গবন্ধু সেতু থেকে ৬৪৩৪ কোটি টাকা টোল আদায়