থমথমে হাটহাজারী, সড়ক অবরোধ

18

থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে চট্টগ্রামের হাটহাজারী এলাকা। ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বাংলাদেশ সফরেরকে কেন্দ্র করে পুলিশের সাথে সংঘর্ষে চার হেফাজত কর্মী নিহতের ঘটনায় চট্টগ্রামের হাটহাজারী-খাগড়াছড়ি সড়কে যান চলাচল বন্ধ রয়েছে।

আজ শনিবার (২৭ মার্চ) ফজরের পর থেকে হাটহাজারীর আল জামিয়াতুল আহলিয়া দারুল উলুম মুঈনুল ইসলাম মাদ্রাসার সামনে ব্যারিকেড দিয়ে সড়ক অবরোধ করেছে শিক্ষার্থীরা। ফলে চট্টগ্রাম-খাগড়াছড়ি সড়কে যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়।

হাটহাজারী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. রুহুল আমিন জানায়, মাদ্রাসার সামনে শিক্ষার্থীরা ব্যারিকেড দেওয়ায় যান চলাচল বন্ধ রয়েছে। শনিবার সকাল থেকেই মাদ্রাসা শিক্ষার্থীরা সড়কে অবস্থান নিয়েছে। সেখানে থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে।

চট্টগ্রাম-৫ আসনের সংসদ সদস্য আনিসুল ইসলাম মাহমুদ ও চট্টগ্রাম রেঞ্জের উপমহাপরিদর্শক (ডিআইজি) আনোয়ার হোসেন হাটহাজারী মাদ্রাসার দুই শিক্ষক ও হেফাজতের দুই নেতার সঙ্গে হাটহাজারী থানায় বৈঠক করেছেন।

বৈঠক শেষে মাদ্রাসার শিক্ষক মুফতি জসিম উদ্দিন জানিয়েছেন, হাটহাজারী থানার ওসিকে প্রত্যাহার ও ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত, আহতদের চিকিৎসা এবং নিহতদের পরিবারকে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার বিষয়গুলো নিয়ে আলোচনা হয়েছে। কিছু দাবি মেনে নেওয়া হয়েছে।

উল্লেখ্য, ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বাংলাদেশ আগমনের প্রতিবাদে গতকাল শুক্রবার জুমার নামাজের পর বিক্ষোভ করেন হাটহাজারী মাদ্রাসার শিক্ষার্থী ও মুসল্লিরা। পরে সেখানে পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষ হয়। এতে তিন মাদ্রাসা ছাত্রসহ চারজন গুলিবিদ্ধ হয়ে নিহত হয়। এরপর থেকে সড়ক অবরোধ করে রাখেন মাদ্রাসা শিক্ষার্থীরা। পরে রাত পৌনে ১২টার দিকে তারা সড়ক থেকে অবস্থান কর্মসূচি তুলে নেন।

নিউজ হান্ট/এনএইচ