নর্থ মেসিডোনিয়ার কাছে জার্মানির লজ্জার হার

16
শুরু থেকে বলের নিয়ন্ত্রণ ও আক্রমণে আধিপত্য করলেও প্রথমার্ধে গোল পায়নি জার্মানি।  উল্টো হজম করেছে। দ্বিতীয়ার্ধে ঘুরে দাঁড়ালেও শেষ রক্ষা হয়নি তাদের। বিশ্বকাপ বাছাইয়ে চারবারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়নদের প্রথম হারের তেতো স্বাদ দিয়েছে নর্থ মেসিডোনিয়া।
২০২২ কাতার বিশ্বকাপের ইউরো অঞ্চলের বাছাইয়ের ‘জে’ গ্রুপের ম্যাচে বুধবার রাতে নিজেদের মাঠে ২-১ গোলে হেরেছে ইওয়াখিম লুভের দল। আগের দুই ম্যাচে আইসল্যান্ড ও রোমানিয়ার বিপক্ষে জিতেছিল সবশেষ ২০১৪ সালে বিশ্বকাপ জয়ী জার্মানি।
ডুয়েসবার্গে ঘরের মাঠে শুরু থেকে বলের নিয়ন্ত্রণ ও আক্রমণে আধিপত্য করলেও প্রথমার্ধে সুযোগ কাজে লাগাতে পারেনি জার্মানি। নবম মিনিটে বক্সের বাইরে থেকে লেয়ন গোরেতজেকার শট গোলরক্ষককে ফাঁকি দিলেও বাধা পায় ক্রসবারে। ২৭তম মিনিটে আরেকটি ভালো সুযোগ হারায় জার্মানি। সার্জ গ্ন্যাব্রির শট কোনোমতে আটকান গোলরক্ষক দিমিত্রিভস্কি।
এরপর ম্যাচে ঘুরে দাঁড়ায় নর্থ মেসিডোনিয়া। ৪০তম মিনিটে আলিওস্কির ক্রসে আদেমির হেড রুখে দিয়ে জার্মানিকে ম্যাচে ধরে রাখেন মার্ক আন্দ্রে টার স্টেগান। তবে বেশি সময় আর আটকে রাখতে পারেননি বার্সেলোনার এই গোলরক্ষক। প্রথমার্ধের নির্ধারিত সময় শেষে যোগ করা অতিরিক্ত সময়ের দ্বিতীয় মিনিটে গোরান পানদেভ বল জালে জড়ালে লিড নেয় মেসিডোনিয়া।
বিরতি থেকে ফেরার পর ম্যাচের ৬৩ মিনিটে পেনাল্টি স্পট থেকে গোল করে জার্মানিকে সমতায় ফেরান ইয়াকি গুন্দোয়ান। এরপর ম্যাচের ৮০তম মিনিটে এগিয়ে যাওয়ার সুবর্ণ সুযোগ নষ্ট হয় জার্মানির। জশুয়া কিমিচের থ্রু বল ধরে গুন্দোয়ান গোলরক্ষককে একা পেয়েও শট নেননি। আড়াআড়ি ক্রস বাড়ান টিমো ভার্নারের উদ্দেশে। চেলসির এই ফরোয়ার্ড ঠিকঠাক টোকা দিতে পারেননি। বল চলে যায় পোস্টের বাইরে দিয়ে।
আর এর মিনিট পাঁচেক পর গোল হজম করে বসে জার্মানি। দুর্বল কর্নারও বিপদমুক্ত করতে পারেননি রক্ষণভাগ। সুযোগে বলের নিয়ন্ত্রণ নিয়ে আদেমি পাস বাড়ান এলজিফ এলমাসকে। ডি-বক্সের মাঝখানে ফাঁকায় থাকা এই মিডফিল্ডার জোরালো শটে লক্ষ্যভেদ করেন। তাতেই ২-১ গোলের দারুণ জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে নর্থ মেসিডোনিয়া।
তিন জয়ে ৯ পয়েন্ট নিয়ে গ্রুপের শীর্ষে রয়েছে আর্মেনিয়া। ৬ করে পয়েন্ট নিয়ে গোল পার্থক্যে দ্বিতীয় স্থানে উঠেছে নর্থ মেসিডোনিয়া; তৃতীয় স্থানে জার্মানি।
নিউজ হান্ট/ইস