বাংলাদেশকে কোনো শক্তি দাবিয়ে রাখতে পারবে না: মোদি

8

বাংলাদেশ ও ভারতের সম্পর্ক অটুট থাকবে উল্লেখ করে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি বলেছেন, দু’দেশের সম্পর্কের কোনো ফাটল ধরবে না। বাংলাদেশ ও ভারতের সম্পর্ক মজবুত। আর বাংলাদেশকে কোনো শক্তি দাবিয়ে রাখতে পারবে না।

আজ শুক্রবার (২৬ মার্চ) স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী ও বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে জাতীয় প্যারেড গ্রাউন্ডের অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে এসব কথা বলেন তিনি।

নরেন্দ্র মোদি বলেন, বাংলাদেশ যখন পাকিস্তানের পরাধীনতার নাগপাশ থেকে বেরিয়ে স্বাধীনতা অর্জনের জন্য এই ভূখণ্ডের মানুষের যেমন ব্যাকুলতা ঠিক, একই ব্যাকুলতা ছিল ভারতের মানুষদের মধ্যেও। জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বাংলাদেশকে স্বাধীন করেছেন। আঞ্চলিক ও বৈশ্বিক রাজনীতিতে তিনি শান্তির বার্তা ছড়িয়েছেন। এ কারণে ভারত সরকার বঙ্গবন্ধুকে এ বছর গান্ধী শান্তি পুরস্কারে ভূষিত করেছে।

বাংলাদেশের স্বাধীনতা সংগ্রামের সময় নিজেও বাংলাদেশের পক্ষে আন্দোলন করেছেন জানিয়ে নরেন্দ্র মোদি বলেন, আমি গর্বের সঙ্গে বলতে চাই— আমার তরুণ জীবনে প্রথম যেসব আন্দোলনের সঙ্গে যুক্ত ছিলাম, তার মধ্যে ছিল বাংলাদেশের স্বাধীনতার পক্ষে আন্দোলন। তখন আমাদের বয়স ছিল ২০-২২ বছর। ওই সময় আমি ও আমার সঙ্গীরা বাংলাদেশের মানুষের মুক্তির জন্য সত্যাগ্রহ আন্দোলন করেছি। এ কারণে গ্রেপ্তারও হয়েছিলাম।

তিনি বলেন, সেদিন বঙ্গবন্ধুর ডাকে বাংলাদেশের কৃষক, যুবক, শ্রমিক, মজুর সবাই এক হয়ে মুক্তিবাহিনী গঠন করে স্বাধীনতার সশস্ত্র লড়াইয়ে ঝাঁপিয়ে পড়েছিল। তিনি বাঙালিকে মুক্তির স্বপ্ন দেখিয়েছিলেন। সে কারণেই আজ মুজিববর্ষে মানুষ বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন, আদর্শ স্মরণ করছে।

উদযাপন অনুষ্ঠানে মুজিব কোট পরে উপস্থিত হন নরেন্দ্র মোদি। তাকে অভ্যর্থনা জানান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে তার বোন শেখ রেহানাও উপস্থিত আছেন।

নরেন্দ্র মোদি পৌঁছার পর বাংলাদেশের জাতীয় সঙ্গীত পরিবেশনের মাধ্যমে স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী ও জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকীর অনুষ্ঠান শুরু হয়।

নিউজ হান্ট/এনএইচ