সাতক্ষীরায় ৯ জনের মৃত্যু, নতুন আক্রান্ত ৬৮

3

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি: সীমান্ত জেলা সাতক্ষীরায় ২৪ ঘণ্টায় করোনার উপসর্গ নিয়ে ৯ জনের মৃত্যু হয়েছে। মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তাদের মৃত্যু হয়। এনিয়ে, জেলায় করোনার উপসর্গ নিয়ে মারা গেছেন মোট ৩৮৪ জন। আর ভাইরাসটিতে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ৭৬ জন। এছাড়া গত ২৪ ঘণ্টায় জেলায় ২৮৫ জনের নমুনা পরীক্ষা শেষে ৬৮ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে।

শনাক্তের হার ২৩ দশমিক ৮৫ শতাংশ। জেলায় বুধবার পর্যন্ত মোট করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ৩ হাজার ৯১২ জন। এর মধ্যে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ২ হাজার ৭৬৯ জন।বর্তমানে জেলায় ১০৪৮ জন করোনা আক্রান্ত রোগী রয়েছেন। এর মধ্যে মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ২৩ জন ও বেসরকারি হাসপাতালে ১৮ জন চিকিৎসাধীন রয়েছেন। বাকি ৯৫৯ জন ভাইরাসটিতে আক্রান্ত হয়ে বাড়িতে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।উপসর্গ নিয়ে মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ২৫৬ জন ও বেসরকারি হাসপাতালে আরও ১১৫ জন ভর্তি রয়েছেন।

জেলার একমাত্র করোনা ডেডিকেটেড ২৫০ শয্যা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে বর্তমানে করোনা আক্রান্ত ও উপসর্গ নিয়ে মোট ২৭৭ জন রোগী ভর্তি রয়েছেন। জনবল সংকটে সেখানে চিকিৎসা সেবা দিতে হিমশিম খেতে হচ্ছে চিকিৎসক, নার্স ও স্বাস্থ্য কর্মীদের।

সাতক্ষীরায় চলমান কঠোর লকডাউনের ৭ম দিনেও মানুষের মাঝে স্বাস্থ্যবিধি মানার কোন বালাই নেই। লকডাউনের নামে মানুষ যেন লুকোচুরি খেলছেন।অনেকেরই আবার মুখে নেই কোন মাস্ক। সড়কেও বেড়েছে জনসমাগম। শহরের অধিকাংশ দোকান পাট আংশিক খোলা রেখে কেনা বেচা করছেন। এছাড়া জেলার বিভিন্ন স্থানে করোনা আক্রান্ত পরিবারের লোকজন স্বাস্থ্য বিধি না মেনেই সর্বত্রই ঘোরাঘুরি করছেন। ফলে করোনা সংক্রমণ আরও বৃদ্ধি পাওয়ার আশংকা করছেন সচেতন মহল। আইনশৃখংলা বাহিনীর সদস্যরা মোড়ে মোড়ে চেক পোষ্ট বসিয়ে চলাচল কিছুটা নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা করছেন। বন্ধ রয়েছে সকল প্রকার গণ-পরিবহন।

সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হুমায়ুন কবির জানান, লকডাউনের বিধি নিষেধ ভঙ্গ করায় জেলায় গত ২৪ ঘণ্টায় ১৭ টি ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযানে ৭৪ টি মামলায় ৪২ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে।

নিউজ হান্ট/কেএইচ

পূর্ববর্তী নিবন্ধপটুয়াখালীতে একদিনে সর্বোচ্চ আক্রান্তের রেকর্ড
পরবর্তী নিবন্ধনান্দাইলে ২ দিনে করোনা শনাক্ত ২৮ জনের