স্বাধীনতার ৫০ বছর পর প্রাকৃতিক গ্যাস পাচ্ছে রংপুর

6

দেশের উত্তর জনপদের রংপুর বিভাগের তিন স্থানে পাইপলাইনে প্রাকৃতিক গ্যাস দেয়ার পরিকল্পনা নিয়েছে সরকার। রংপুর, নীলফামারী, পীরগঞ্জ শহর ও তদসংলগ্ন এলাকায় গ্যাস বিতরণ পাইপলাইন নেটওয়ার্ক নির্মাণ শীর্ষক ২৫৮ কোটি ১১ লাখ টাকার একটি প্রকল্প হাতে নিয়েছে বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজসম্পদ মন্ত্রণালয়। স্বাধীনতার ৫০ বছর পর সেখানে গ্যাস যাচ্ছে।

বলা হচ্ছে, প্রকল্পটি বাস্তবায়িত হলে প্রকল্প এলাকায় ১০০ কিলোমিটার গ্যাস বিতরণ পাইপলাইন নেটওয়ার্ক এবং তিনটি ডিস্ট্রিক্ট রেগুলেটিং স্টেশন স্থাপন করে শিল্প ও বিদ্যুৎ কেন্দ্র খাতে ১০২টি সংযোগের ১৬৫ এমএমসিএফডি গ্যাস সরবরাহ করতে পারবে মন্ত্রণালয়।

বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজসম্পদ মন্ত্রণালয় হতে প্রস্তাবটি গত বছরের ১৯ নভেম্বর অনুষ্ঠিত প্রকল্প মূল্যায়ন কমিটির (পিইসি) সভায় পাঠানো হয়। ওই সভায় দেয়া সুপারিশগুলো প্রতিপালন করায় এটি জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) বৈঠকে উপস্থাপনের সুপারিশ করেছে। অনুমোদন পেলে চলতি বছর শুরু হয়ে ২০২৩ সালের জুনের মধ্যে প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করবে পশ্চিমাঞ্চল গ্যাস কোম্পানি লিমিটেড জিজিসিএল, পেট্রোবাংলা। বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজসম্পদ মন্ত্রণালয়ের এক কর্মকর্তা গণমাধ্যমকে এসব জানিয়েছেন।

পেট্রোবাংলার আওতাধীন পশ্চিমাঞ্চল গ্যাস কোম্পানি লিমিটেড (পিজিসিএল) রাজশাহী ও রংপুর বিভাগে পাইপলাইনের মাধ্যমে প্রাকৃতিক গ্যাস বিতরণ কার্যক্রম কিছু এলাকায় চলছে।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ২০১১ সালের ৮ জানুয়ারি রংপুর সফরকালে পর্যাপ্ত গ্যাস পাওয়া গেলে রংপুরে তথা দেশের উত্তর জনপদে গ্যাস লাইন সম্প্রসারণের প্রতিশ্রুতি দেন। সেই প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়নে এই প্রকল্প নেয়া হয়েছে।

রাজশাহী ও রংপুর বিভাগে বর্তমানে জ্বালানি হিসাবে প্রাকৃতিক গ্যাসের ব্যবহার ১৭৬ এমএমসিএফডি যা মোট প্রাকৃতিক গ্যাস ব্যবহারের ৫.৬৬ শতাংশ। মোট জনসংখ্যা বিবেচনায় গ্যাস ব্যবহারের এই বৈষম্য দূরীকরণ এবং এলাকার শিল্পের উন্নয়নের জন্য রংপুর ও নীলফামারী জেলায় প্রাকৃতিক গ্যাস সরবরাহের জন্য গ্যাস বিতরণ নেটওয়ার্ক স্থাপন করা প্রয়োজন।

বর্তমানে রংপুরে শিল্প-কারখানা আছে ৫১টি, উত্তরা ইপিজেডে কারখানা আছে ২৭টি। তাছাড়া নীলফামারীতে নির্মাণাধীন সাড়ে ৩০০ একরের ইকোনমিক জোনসহ সম্ভাব্য শিল্প-কারখানার সংখ্যাও হিসাবে নেয়া হয়েছে। রেল কারখানা এলাকায় প্রথম গ্যাস চালু হবে।

নিউজ হান্ট/আরকে

পূর্ববর্তী নিবন্ধপ্রেম: একই রশিতে কিশোর কিশোরীর আত্মহত্যা
পরবর্তী নিবন্ধরাজনীতিতে নেমেই বাজিমাত সায়নীর