বৃহস্পতিবার, জানুয়ারি ২০, ২০২২

প্রতারকের সঙ্গে সম্পর্ক, জ্যাকলিনকে ভারত ছাড়তে বাধা

আরও পড়ুন

করোনায় আক্রান্ত ন্যান্সি

পারিবারিক কলহের জেরে শিমুকে হত্যা করা হয়: পুলিশ

অনুষ্ঠানে অংশ নিতে দুবাই যেতে চেয়েছিলেন বলিউড অভিনেত্রী জ্যাকলিন ফার্নান্দেজ। তাকে তাকে বিমানবন্দরে আটকে দেয়া হয়েছে। মুম্বাই বিমানবন্দরে তাকে আটকে দেয়া হয়।

অর্থ তছরূপের মামলায় অভিযুক্ত সুকেশ চন্দ্রশেখরের সঙ্গে জ্যাকলিনের যোগাযোগের প্রমাণ মিলেছে। অভিবাসন কর্মকর্তাদের তরফ থেকে বলা হয়েছে, জ্যাকলিনের সঙ্গে যোগাযোগ রয়েছে লু আউট সার্কুলারে উল্লেখ থাকা সুকেশের। সেই কারণেই তাকে বিদেশে যেতে দেওয়া যাবে না। খবর নিউজ এইট্টিনের

ইডির তরফ থেকে ইতিমধ্যে একটি দীর্ঘ চার্জশিট জমা পড়েছে সুকেশের বিরুদ্ধে। সেখানে ২০০ কোটি টাকার অর্থ তছরূপের অভিযোগের ভিত্তিতে একাধিক নানা যোগসূত্র তৈরি করেছে ইডি। সেখানে স্পষ্ট হয়েছে, জ্যাকলিন ও সুকেশের মধ্যে আর্থিক লেনদেন চলত নিয়মিত।

খবর পাওয়া গিয়েছে, যে সময়ে সুকেশ জেলবন্দি ছিলেন, তারপর জামিন পেয়ে বেরিয়ে আসার পরে জ্যাকলিনের সঙ্গে নিয়মিত যোগাযোগ ছিল তার। ফোন কথা হয়েছিল জেল থেকেও। জামিন পাওয়ার পর দেশের মধ্যে দিল্লি ও চেন্নাইয়ে যাত্রা করেছিলেন সুকেশ। সেই সময়ে সম্ভবত জ্যাকলিনের সঙ্গে দেখাও হয়েছিল। ইডি সূত্রে খবর, সেই সময়ে এক হোটেলে ছিলেন জ্যাকলিন ও সুকেশ।

জ্যাকলিনকে একাধিক উপহারও দিয়েছিলেন সুকেশ। একটি ৯ লক্ষ টাকার পার্শিয়ান বিড়াল উপহার দিয়েছিলেন তিনি। এছাড়াও একটি ৫২ লক্ষ টাকার লেনদেন হয়েছিল, প্রথমে সেটি একটি আবাসনের জন্য খরচ করা হয়েছে বলে শোনা গেলেও পরে শোনা যায়, সেটি দিয়ে একটি ঘোড়া উপহার দেওয়া হয়েছিল জ্যাকলিনকে। দিয়েছিলেন সুকেশ।

এছাড়া বিটাউনের আরও এক অভিনেত্রী, নোরা ফতেহির সঙ্গেও যোগাযোগ ছিল সুকেশের। তিনি নোরাকে একটি বিএমডাব্লু গাড়ি উপহার দিয়ে ছিলেন বলে ইডি সূত্রে খবর। যদিও নোরা এই অভিযোগ অস্বীকার করেছেন। তিনি বলেছেন, এমন কোনো লেনদেন হয়নি। সুকেশকে তিনি স্পষ্ট করে চেনেনও না।

নিউজ হান্ট/কেএইচ

সর্বশেষ

বিদায় নিচ্ছেন সানিয়া মির্জা

করোনায় একদিনে বিশ্বে ৩২ লাখ শনাক্ত

সন্তান ধারনে এইডস আক্রান্ত নারীর ঝুঁকি অনেক বেশি

কর্মবিরতির হুমকি রেল কর্মীদের

দেশে চা উৎপাদনে নতুন রেকর্ড