সোমবার, অক্টোবর ১৮, ২০২১

রোহিঙ্গা ইস্যুতে জাতিসংঘের সঙ্গে ‘ভাসানচর চুক্তি’ এ সপ্তাহে

আরও পড়ুন

ভাসানচরে রোহিঙ্গাদের মধ্যে মানবিক কার্যক্রম চালানোর বিষয়ে জাতিসংঘ-বাংলাদেশ চুক্তি এ সপ্তাহেই হতে পারে। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ও জাতিসংঘ সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

তবে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. মহসীন বলেন, ‘এ বিষয়ে কাজ এগোচ্ছে। চুক্তি হলে জানবেন। দু-একদিন অপেক্ষা করুন।’

নাম না প্রকাশ করার শর্তে জাতিসংঘের এক কর্মকর্তা জানান, ‘আগামী বৃহস্পতিবার এ চুক্তি সই হওয়ার কথা রয়েছে। আজ মঙ্গলবার বিষয়টি চূড়ান্ত হয়েছে। চুক্তি সই হওয়ার জন্য সব বিষয়ে সমঝোতায় এসেছে জাতিসংঘ ও বাংলাদেশ। বুধবার চুক্তি হচ্ছে না; বৃহস্পতিবারে চুক্তি হয়ে যেতে পারে।’

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক কর্মকর্তা নাম না প্রকাশ করার শর্তে বলেন, ভাসানচর নিয়ে বাংলাদেশ ও জাতিসংঘের দূরত্ব মিটে গেছে, তা বলা যাবে না। বিষয়টিতে অনেক কিছুতে আপস করা হয়েছে। বিষয়টি ত্রাণ ও দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা মন্ত্রণালয়ের অধীনে। তারাই এ বিষয়ে আনুষ্ঠানিক বক্তব্য দিতে পারবেন।

কী ধরনের আপস হয়েছে? জানতে চাইলে উদাহরণ দিয়ে তিনি বলেন, ‘যেমন রোহিঙ্গাদের চলাচলের স্বাধীনতা চেয়েছে জাতিসংঘ। এখানে শুধুমাত্র জরুরি ক্ষেত্রে, ধরেন হঠাৎ কেউ অসুস্থ হয়ে পড়ল, সে ক্ষেত্রে চিকিৎসকের কাছে নিয়ে যাওয়ার মতো বিষয়গুলোতে বাংলাদেশ ছাড় দেবে।’

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সূত্র জানিয়েছে, ভাসানচরে যাওয়া নিয়ে বর্তমানে সরকারের সঙ্গে আলোচনা চলছিল জাতিসংঘের। এ আলোচনায় বাংলাদেশের পক্ষে নেতৃত্ব দিয়েছে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়। সেখানে রোহিঙ্গাদের চলাচলের স্বাধীনতা, শিক্ষা, কর্মসংস্থানের সুযোগ, নির্বাচনের সুযোগসহ বিভিন্ন শর্ত দিয়েছে জাতিসংঘ। সেই সঙ্গে ভাসানচরের মতো কক্সবাজারে রোহিঙ্গা শিবিরেরও আবদার জুড়ে দিয়েছে তারা। কিন্তু এসব শর্তের মধ্যে কিছু শর্ত রয়েছে, যেগুলো আংশিক মেনেছে বাংলাদেশ। আর কিছু শর্ত রয়েছে, যা কোনোভাবেই মানেনি।

নিউজ হান্ট/ম

সর্বশেষ