সোমবার, ডিসেম্বর ৬, ২০২১

হাফ ভাড়া নিয়ে লাঞ্ছনা, বকশীবাজারে সড়ক অবরোধ

আরও পড়ুন

বাসে হাফ ভাড়া দিতে চাওয়ায় ঢাকার বেগম বদরুন্নেসা সরকারি মহিলা কলেজের কয়েকজন ছাত্রীকে লাঞ্ছিত করার অভিযোগ উঠেছে বাস চালকের সহকারীর বিরুদ্ধে। এর প্রতিবাদে সড়কে নেমে বিক্ষোভ করছেন প্রতিষ্ঠানটির শিক্ষার্থীরা।

রোববার (২১ নভেম্বর) সকালে বিভিন্ন প্ল্যাকার্ড নিয়ে সড়কে বসে অবস্থান নেন তারা। এসময় বুয়েট, ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও হোসেনি দালান সংলগ্ন সড়কে যানজট সৃষ্টি হয়।

বেগম বদরুন্নেসা সরকারি মহিলা কলেজের উচ্চমাধ্যমিক দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্রী হাবিবা আক্তার বলেন, গতকাল ঢাকার শনির আখড়া এলাকায় ঠিকানা পরিবহনের একটি বাসে তাঁদের একজন সহপাঠী হাফ পাস ভাড়া দিতে চাইলে তাঁকে ধর্ষণের হুমকি দেন চালকের সহকারী। তাঁরা এ ঘটনার বিচার চান। পাশাপাশি গণপরিবহনে শিক্ষার্থীদের জন্য হাফ পাস ভাড়া নির্ধারণের জন্য তাঁরা সরকারের কাছে দাবি জানান। দাবির বিষয়ে দায়িত্বশীল পর্যায় থেকে কোনো বক্তব্য না আসা পর্যন্ত তাঁরা রাস্তা ছাড়বেন না।

কর্মসূচিতে অংশ নেওয়া ঢাকা কলেজের ইতিহাস বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র মাসুম বিল্লাহ বলেন, গতকাল ঠিকানা পরিবহনের বাসে হাফ পাস ভাড়া দিতে চাইলে বদরুন্নেসা কলেজের উচ্চমাধ্যমিকের এক ছাত্রীকে ধর্ষণের হুমকি দেন চালকের সহকারী। এর প্রতিবাদে আজ সকাল নয়টায় বদরুন্নেসা কলেজের ছাত্রীরা কলেজ ক্যাম্পাস থেকে মিছিল বের করার প্রস্তুতি নেন। কিন্তু আগে থেকেই কলেজফটকে অবস্থান করছিল পুলিশ। পরে ঢাকা কলেজ, শেখ বোরহানুদ্দীন পোস্ট গ্র্যাজুয়েট কলেজ, সরকারি তিতুমীর কলেজ, তেজগাঁও কলেজসহ বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের কয়েক শ শিক্ষার্থী বদরুন্নেসা কলেজের সামনে যান। সেখানে পুলিশের সঙ্গে কিছুক্ষণ বাগ্‌বিতণ্ডা ও ধাক্কাধাক্কির পর ফটক খুলে দেওয়া হয়। পরে কয়েক শ শিক্ষার্থীর একটি মিছিল বকশীবাজার মোড়ে এসে অবস্থান নেয়।

ইশরাত জাহান লোপা নামে দ্বিতীয় বর্ষের এক শিক্ষার্থী বলেন, এ রুটের বাসগুলো হাফ ভাড়া দেওয়ায় ছাত্রীদের বাসে তোলে না। ছাত্রী দেখলে দরজা বন্ধ করে রাখে। হাফ ভাড়া দিতে চাইলেই বাসে হইহুল্লোড় করে বাস থেকে নামিয়ে দেয়। আমরা সুশৃঙ্খলভাবে বাসে চলাচল করতে চাই। এ দাবিতে আমরা সড়ক অবরোধ করেছি।

এর আগে গণপরিবহনে ভাড়া বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়ে প্রজ্ঞাপন জারি করে সরকার। বাস ভাড়া বাড়িয়ে দূরপাল্লায় প্রতি কিলোমিটারে ১ টাকা ৮০ পয়সা, মহানগরে ২ টাকা ১৫ পয়সা এবং মিনিবাসে ২ টাকা ৫ পয়সা করা হয়েছে। এর মাধ্যমে দূরপাল্লায় প্রতি কিলোমিটারে ভাড়া ২৬ শতাংশ বা ৩৮ পয়সা এবং মহানগরে ২৬ দশমিক ৫ শতাংশ বা ৪৫ পয়সা ভাড়া বেড়েছে। তবে সিএনজিচালিত বাসের জন্য বাড়তি ভাড়া প্রযোজ্য নয়। এছাড়া সর্বনিম্ন বাস ভাড়া ১০ টাকা, মিনিবাসে ৮ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে।

সম্প্রতি প্রতি লিটার ডিজেল ও কেরোসিনের দাম ৬৫ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৮০ টাকা করা হয়। এর জেরে তিন দিন ট্রাক, কাভার্ড ভ্যান ও লরিচালক-মালিকেরা গাড়ি চলাচল বন্ধ রাখার ঘোষণা দেন। তাদের সঙ্গে যোগ দেন বাসচালক-মালিকরা।

তবে অতিরিক্ত ভাড়া বাতিল ও শিক্ষার্থীদের হাফ ভাড়া কার্যকরের দাবিতে প্রথম দিন থেকেই আন্দোলনে নামে ঢাকার বিভিন্ন স্কুল কলেজের শিক্ষার্থীরা। শনিবার বিক্ষোভের একপর্যায়ে সাইন্স ল্যাবরেটরি মোড়ে বাস ভাঙচুরের ঘটনা ঘটে।

রাজধানীর ১২৮টি রুটে বাস-মিনিবাসে অতিরিক্ত ভাড়া আদায়ের ফলে নৈরাজ্যকর পরিস্থিতি চলছে। প্রথা চালু থাকলেও বাসে শিক্ষার্থীদের হাফ ভাড়া নেওয়া হচ্ছে না। শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের চাপে কোনো কোনো বাস কোম্পানি হাফ ভাড়া নেওয়ার জন্য রাজি হয়েছে। ২০১৮ সালে শিক্ষার্থীদের নিরাপদ সড়ক আন্দোলনেও ৯টি দাবির মধ্যে হাফ ভাড়া নেওয়ার বিষয়টি ছিল।

একমাত্র সরকারি সড়ক পরিবহন সংস্থা বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন করপোরেশনের (বিআরটিসি) বাসেও শিক্ষার্থীদের হাফ ভাড়া নেওয়া হচ্ছে না।

বিআরটিসির চেয়ারম্যান মো. তাজুল ইসলাম বলেছেন, আমাদের সরকারি বাসে হাফ ভাড়া নেওয়া হয় না। এ বিষয়ে সরকারি কোনো নির্দেশ আমাদের কাছে আসেনি। সরকার নির্দেশ দিলে আমরা বিআরটিসির বাসে শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে হাফ ভাড়া নেব। এখন বিআরটিসির কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বেতন-ভাতা দেওয়ার জন্যে সরকারকে ভর্তুকি দিতে হচ্ছে না।

তিনি বলেন, শিক্ষার্থীদের ব্যবহারের জন্য প্রায় দেড়শ বাস রয়েছে বিআরটিসির। কোনো শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বিআরটিসির বাস চুক্তিতে নিতে চাইলে আমরা অগ্রাধিকার ভিত্তিতে দিয়ে থাকি। ছোটবেলায় শিক্ষার্থী হিসেবে আমরাও বাসে হাফ ভাড়া দিয়েছি। এখন তো সেই পরিস্থিতি নেই। শিক্ষার্থী অনেক বেড়েছে।

বেসরকারি বাস মালিকরা বলছেন, হাফ ভাড়া বাস্তবায়ন হলে তাদের লোকসান গুনতে হবে। সড়ক পরিবহন মালিক সমিতির মহাসচিব খন্দকার এনায়েতউল্ল্যাহ বলেন, শিক্ষার্থীদের জন্য বাসে হাফ ভাড়া নেওয়ার বিষয়টি নিয়ে সরকারের পক্ষ থেকে কোনো নির্দেশনা নেই। আইনগত ভিত্তির ওপর এই দাবিকে প্রতিষ্ঠিত করা হয়নি।

নিউজ হান্ট/ম

সর্বশেষ